মঙ্গলবার, ২০ অক্টোবর ২০২০, ১০:৪৯ অপরাহ্ন

সর্বশেষ সংবাদ
বিশ্বনাথে ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে বয়স্ক ও প্রতিবন্ধী ভাতা আত্মসাতের অভিযোগ ছাতকে নানান অায়োজনে উদয়ন রক্তদান সমাজ কল্যাণ সংস্থার প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন সতিনপো’র রডের ঘাই’য়ে রক্তাক্ত সত মা ছাতকে পূজা কমিটির নেতৃবৃন্দের সাথে থানা পুলিশের মতবিনিময় ছাতকে নারী নির্যাতন ও ধর্ষণ বিরোধী সমাবেশ অনুষ্ঠিত রোববার থেকে সারাদেশে ইন্টারনেট ও ক্যাবল টিভি সংযোগ তিন ঘণ্টা করে বিচ্ছিন্ন থাকবে দু’দফা বৈঠকের পর স্বাভাবিক হল সুনামগঞ্জ-সিলেটের অটো চলাচল প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ধন্যবাদ জানিয়ে যুক্তরাষ্ট্র ছাত্রলীগের আনন্দ সমাবেশ সিলেটের ফেঞ্চুগঞ্জে অপহরণ ও ধর্ষণ মামলায় গ্রেপ্তার যুবক ঘুষ-দুর্নীতি ঢাকতে উপ-সহকারী কর্মকর্তা রঞ্জনের নাটক সুনামগঞ্জের প্রবাসীর স্ত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টা, থানায় অভিযোগ দায়ের ১৫ অক্টোবরের সমাবেশ সফল করার অাহব্বান মুফতি ক্বাসিমীর দোয়ারাবাজারে তৃতীয় শ্রেণীর কর্মচারী এখন কোটিপতি, নামগঞ্জ-সিলেটে সম্পদের পাহাড় আল্লামা মামুনুল হক ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব নির্বাচিত, মুফতি ক্বাসীমীর অভিনন্দন কুলাউড়ার টিলাগাও এ তরুন সনাতনী সংঘ (টিএসএস) এর গুরুকুল জ্ঞানগৃগ (গীতাস্কুল) উদ্ভোদন
সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মাঝে বৈষম্য, বেতন বাড়ানোর দাবি

সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মাঝে বৈষম্য, বেতন বাড়ানোর দাবি

শেয়ার করুনঃ

 

সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীর মাঝে বিশাল বৈষম্য চলছে জানিয়ে বেতন-ভাতা বাড়ানোসহ ১১ দফা দাবি জানিয়েছে বাংলাদেশ সরকারি কর্মচারী উন্নয়ন পরিষদ।

৯ অক্টোবর (শুক্রবার) সকালে রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে ১১ দফা দাবি তুলে ধরে সংগঠনটি।

“করোনাকালে দেশের ৫৩ শতাংশ পরিবার কম খাবার খেয়ে থেকেছে। গত এপ্রিল-জুলাইয়ে বেকারত্বের হার বেড়ে দাঁড়িয়েছিল ২২ দশমিক ৩৯ শতাংশে। এ মহামারিতে সবচেয়ে সুবিধাজনক অবস্থানে আছে সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীরা” বলেছেন বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর (বিবিএস) হিসাব।

তাদের বেতন কমেনি, বরং নানা সুযোগ-সুবিধা বেড়েছে। অন্যদিকে সাধারণ মানুষের বড় অংশই এখনও করোনার ক্ষতি পুষিয়ে উঠতে পারেনি। এ অবস্থার মধ্যেই আরও সুযোগ-সুবিধার দাবিতে সংবাদ সম্মেলন করেছেন সরকারি কর্মচারীরা।

সংবাদ সম্মেলনে পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক ও প্রধান সমন্বয়ক মো. শাহীনুর রহমান বলেন, বৈষম্যের যাতাকলে পিষ্ট ১১-২০ গ্রেডের কর্মচারীরা। এ বৈষ্যমের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের মাধ্যমে নিজেদের অধিকার আদায় করে বৈষম্যমুক্ত কর্মচারীদের অধিকার ফিরিয়ে আনার লক্ষ্যে আমাদের এ যাত্রা। এ যাত্রা সফল করার জন্য আমরা কর্মচারীদের মুক্তির সনদ হিসেবে বেছে নিয়েছি ১১ দফা দাবি।

তাদের ১১ দফা দাবি হলো– দ্রুত নবম পে-কমিশন গঠন এবং নবম পে-স্কেলের মাধ্যমে বেতন বৈষম্য নিরসন করতে হবে। তার আগে জীবনযাত্রার মান ও আয়-ব্যয়ের সঙ্গতি সামঞ্জস্য রাখতে ৩ থেকে ৮টি স্পেশাল ইনক্রিমেন্ট অথবা ৪০ শতাংশ মহার্ঘভাতা (সর্বনিম্ন ৫ হাজার টাকা) দিতে হবে। টাইমস্কেল, সিলেকশন গ্রেড, বেতন সমতাকরণ, ইবিক্রস, অগ্রিম ইনক্রিমেন্ট এবং বিশেষ গ্রেড প্রদান পূর্বের মতো বহাল করতে হবে। সচিবালয়ের মতো পদ ও গ্রেড পরিবর্তন করতে হবে। বর্তমান ২০ গ্রেডের পরিবর্তে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সরকারের প্রণয়ন করা। ১৯৭৩ সালের আলোকে বেতন বৈষম্য দূরকল্পে ১০টি গ্রেড বাস্তবায়ন করতে হবে।

১১ থেকে ২০ গ্রেডের সরকারি কর্মচারীদের বাড়ি ভাড়া বেসিকের শতভাগ ও স্বল্পমূলে রেশন দিতে হবে। ১১ থেকে ২০ গ্রেডের সরকারি কর্মচারীদের বিনাসুদে ৫০ লাখ টাকা গৃহনির্মাণ ঋণ দিতে হবে। ব্লক পদে পদোন্নতির সুযোগ দিয়ে সকল পদের পদোন্নতির ক্ষেত্রে নিয়োগবিধি একমুখী করা, কমন নিয়োগবিধিতে পদ সংখ্যা বৃদ্ধিসহ কমন পদে আন্তঃদফতর বদলি চালু করতে হবে। শতভাগ পেনশন সমর্পণ আগের মতো বহাল, পেনশনযোগ্য চাকরিকাল বর্তমানে প্রচলিত ৫ থেকে ২৫ এর স্থলে ৫ থেকে ২০ বছর এবং পেনশনের হার সর্বশেষ আহরিত বেতনের ৯০ শতাংশের জায়গায় ১০০ শতাংশে উন্নীত করাসহ আনুতোষিক ১ টাকায় ৫০০ টাকা নির্ধারণ করতে হবে।

এছাড়া গ্যাস ও বিদ্যুৎ বিল ভাতা, ঝুঁকিপূর্ণ কাজে ঝুঁকি ভাতা এবং ওভারটাইম চালু করতে হবে। চিকিৎসা, শিক্ষা টিফিন ও যাতায়াত ভাতা বাস্তব সম্মতভাবে পুনর্নির্ধারণ করতে হবে। আউট সোর্সিং নিয়োগ বিলুপ্তসহ কর্মরতদের চাকরি স্থায়ীকরণ এবং উন্নয়ন প্রকল্পে সাকুল্য বেতনভোগীদের রাজস্ব খাতে স্থানান্তর করতে হবে।

শেয়ার করুন

Sylhet24Live.Com কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত।
Design & Developed BY POS Digital